dark_mode
Monday, 05 December 2022
Logo

বিএনপির ত্রি-বার্ষিকী সম্মেলনে ককটেল বিস্ফোরণ

বিএনপির ত্রি-বার্ষিকী সম্মেলনে ককটেল বিস্ফোরণ

এস কে মুকুল, জয়পুরহাট প্রতিনিধি: জয়পুরহাটের পাঁচবিবি উপজেলার ধরঞ্জী ইউনিয়ন বিএনপির ত্রি-বার্ষিকী সম্মেলনকে কেন্দ্র করে মঞ্চের পেছনে ককটেল বিস্ফোরণ ঘটিয়েছে দুর্বৃত্তরা। ককটেল বিস্ফোরণে আতংক ছড়িয়ে পড়ে সম্মেলন অঙ্গণে।

এসময় পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রণে আনতে পুলিশ ফাঁকা গুলি ও লাঠিচার্জ করে বিএনপির দু'পক্ষের নেতাকর্মীদের ছত্রভঙ্গ করে দেয়। শনিবার (১৯ নভেম্বর) বিকেলে ধরঞ্জী উচ্চ বিদ্যালয় মাঠে আয়োজিত ইউনিয়ন বিএনপির সম্মেলনে এ ঘটনা ঘটে।

বিএনপির দলীয় সূত্রে জানা গেছে, শনিবার বিকেলে ধরঞ্জী ইউনিয়ন বিএনপির আয়োজনে ধরঞ্জী ইউনিয়ন বিএনপির ত্রি-বার্ষিকী সম্মেলনের আয়োজন করা হয়।

সম্মেলন সফল করতে জেলা-উপজেলা ও ইউনিয়ন বিএনপির নেতাকর্মীরা যোগ দেন। জাতীয় ও দলীয় পতাকা উত্তোলনের মধ্য দিয়ে সম্মেলনের প্রথম অধিবেশন শুরু করতেই মঞ্চস্থলের পিছন থেকে ককটেল নিক্ষেপ করে দুর্বৃত্তরা।

এসময় পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রণে আনতে পুলিশ ফাঁকা গুলি ছোড়ে ও লাঠিচার্জ করে ছত্রভঙ্গ করে দেয়। সম্মেলনস্থল থেকে বেশ কয়েকজন বিএনপির নেতাকর্মীকে আটক করে পুলিশ।

পাঁচবিবি উপজেলা বিএনপির আহবায়ক সাইফুল ইসলাম ডালিম বলেন, সম্মেলনে প্রথম অধিবেশন শুরুর আগ মুহূর্তে দূর্বত্তরা মঞ্চের পিছনে ককটেল বিস্ফোরণ ঘটানোয় সম্মেলনস্থলে অস্থিতিশীলতা বিরাজ করে।

সাইফুল ইসলাম ডালিম আরও বলেন, ভীতিকর এমন পরিস্থিতির মধ্যেই ইউনিয়ন বিএনপির আহবায়ক আব্দুল হাকিম মন্ডলকে সভাপতি ঘোষণা করে সম্মেলনের বাকি কার্যক্রম স্থগিত রাখা হয়। মঞ্চে ককটেল বিস্ফোরণের সঙ্গে আমাদের বিএনপির কোনো নেতাকর্মীরা জড়িত নয়। 

পাঁচবিবি সিনিয়র সহকারী পুলিশ সুপার ইশতিয়াক আলম বলেন, সম্মেলন চলার সময়ে বিএনপির পদবঞ্চিত পক্ষের লোকজন ককটেল বিস্ফোরণ ঘটিয়ে বিশৃঙ্খলা তৈরির চেষ্টা করে।

ইশতিয়াক আলম আরও বলেন, এসময় পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রণে আনতে ৩ রাউন্ড ফাঁকা গুলি ও লাঠিচার্জ করা হয়। ঘটনাস্থল থেকে ৩০/৪০টি বাঁশের লাঠি জব্দ করা হয়। এ ঘটনায় ঘটনাস্থল থেকে ৫/৬ জনকে আটক করা হয়েছে।

comment / reply_from

newsletter

newsletter_description