রাষ্ট্রীয় মর্যাদায় মুক্তিযোদ্ধা কমান্ডার আব্দুল কাদেরের দাফন সম্পন্ন

115

মোঃ রেজাউল করিম লিটন, মানিকগঞ্জ থেকে : দৌলতপুরের বীর মুক্তিযোদ্ধা ও মুক্তিযোদ্ধা কমান্ডার এবং তিনবারের সফল উপজেলা চেয়ারম্যান আব্দুল কাদেরের রাষ্ট্রীয় মর্যাদায় জানাজা ও দাফন সম্পন্ন হয়েছে।

দৌলতপুরের স্থায়ী বাসিন্দা (জন্মস্থান চরকাটারী চরকাটারী পূর্বের বাসিন্দা) বীর মুক্তিযোদ্ধা ও মুক্তিযোদ্ধা কমান্ডার আব্দুল কাদের বার্ধক্যজনিত কারণে চিকিৎসাধীন অবস্থায় ২৮ আগস্ট বিকাল ৪টায় তিনি তার নিজ বাড়িতে শেষ নিঃশ্বাস ত্যাগ করেন। মৃত্যুকালে তার বয়স হয়েছিল ৭২ বছর। মৃত্যুকালে তিনি ২ ছেলে, ৪ মেয়ে, অসংখ্য আত্মীয়-স্বজন ও গুণগ্রাহী রেখে গেছেন। তার সহধর্মিনী আগেই গত হয়েছেন। তাকে যথাযথ মর্যাদায় দৌলতপুর পি এস সরকারি উচ্চ বিদ্যালয়ের মাঠে সোমবার সকাল ১০টায় রাষ্ট্রীয় মর্যাদা প্রদান করা হয়।

দৌলতপুর উপজেলা নির্বাহী অফিসার মোহাম্মদ ইমরুল হাসানের উপস্থিতিতে দৌলতপুর  থানার ওসি তদন্ত  মোঃ মজিবুর রহমানের নেতৃত্বে পুলিশ সদস্যরা গার্ড অব অনার প্রদান করেন। এসময় দৌলতপুর উপজেলার বীর মুক্তিযোদ্ধাসহ বর্তমান উপজেলা চেয়ারম্যান মোঃ নুরুল ইসলাম রাজা ও  স্থানীয় গণ্যমান্য ব্যক্তিবর্গ উপস্থিত ছিলেন।

প্রশিক্ষণপ্রাপ্ত মুক্তিযোদ্ধা ও মুক্তিযোদ্ধা কমান্ডার আব্দুল কাদেরের জানাজায় অংশ নিতে অনেক দূর দুরান্ত থেকে বহুলোক আসেন। তাদের মধ্যে ছিলেন দৌলতপুরের কৃতিসন্তান ও সেন্ট্রাল যুবলীগ নেতা এস এম জাহিদ, মানিকগঞ্জের মুক্তিযোদ্ধা কমান্ডের নেতারা, জেলা আওয়ামী লীগের সাংগঠনিক সম্পাদক হাবিবুর রহমান টিপু, যুবলীগের আহবায়ক আব্দুর রাজ্জাক রাজা, স্বেচ্ছাসেবক লীগের সাংগঠনিক সম্পাদক, আবুল বাশার, জেলা ছাত্রলীগের যুগ্ন সাধারন সম্পাদক এমএ আকাশ ও প্রাক্তন উপজেলা চেয়ারম্যান তোজাম্মেল হক তোজা। এছাড়াও থানা আওয়ামী লীগের সকল নেতা কর্মী ও সাধারন মানুযসহ অসংখ্য ভক্ত জানাজায় অংশ নেন।