রাণীশংকৈলে ৪৮ বস্তা সার জব্দ, ৫০ হাজার টাকা জরিমানা

92
রাণীশংকৈলে ৪৮ বস্তা সার জব্দ ও ৫০ হাজার টাকা জরিমানা
রাণীশংকৈলে ৪৮ বস্তা সার জব্দ ও ৫০ হাজার টাকা জরিমানা

আনোয়ার হোসেন আকাশ, রাণীশংকৈল (ঠাকুরগাঁও) প্রতিনিধি : ঠাকুরগাঁওয়ের রাণীশংকৈল পৌর শহরে মুক্তা সিনেমা হলের সামনের পাকা রাস্তায় শুক্রবার (২২ জুলাই) রাত ১২টার দিকে অবৈধভাবে বিক্রি করা ৪৮ বস্তা রাসায়নিক টিএসপি ও পটাশ সার জনসাধারন আটক করে।

৪টি ব্যাটারিচালিত ভ্যানে করে ওই সার স্থানীয় ভ্যানচালক মোঃ হানিফা, জবায়দুর রহমান , নূর ইসলাম ও অজয় কুমার উপজেলার রামপুর বেলপুকুরের ক্ষুদ্র সার ব্যবসায়ী জাহিদুরের দোকানে নিয়ে যাচ্ছিল।

তবে উপস্থিত অবস্থায় ক্রেতা জাহিদুরের কাছে সার ক্রয়ের কোনো রশিদ ছিলনা। এসময় উপস্থিত হয়ে স্থানীয় কর্মরত সাংবাদিকরা এ সারের ছবিসহ তথ্য সংগ্রহ করেন।

উত্তেজিত জনতা সার আটকের খবর পেয়ে সহকারি কমিশনার (ভূমি) ভ্রাম্যমাণ আদালতের নির্বাহী ম্যাজিস্ট্রেট ইন্দ্রজিৎ সাহা ও উপ-সহকারি কৃষি অফিসার সাদেকুল ইসলাম অভিযান চালিয়ে সারগুলো উদ্ধার করেন। ঘটনাস্থলে ভ্যানচালক সহ আটক কারিদের কাছে তথ্য নেন। পরে পুলিশও সেখানে উপস্থিত হয়।

এসিল্যান্ড ঘটনাস্থলেই ওই সার জব্দ করে থানায় পাঠিয়ে দেন। ওই সার স্থানীয় সার ডিলার আলাউদ্দিন এর মাধ্যমে বিক্রি করা হয়েছে জেনে কর্মকর্তারা উক্ত ডিলারের সার গোডাউন ও তার বাড়িতে গিয়ে ঘটনা তদন্ত করেন। এসময় ডিলার কর্মকর্তাদের কাছে ওই সার বিক্রি করেছেন মর্মে স্বীকার করেন।

রাণীশংকৈল উপজেলা উপ-সহকারি কৃষি অফিসার সাদেকুল ইসলাম বলেন, সংশ্লিষ্ট কর্তৃপক্ষের সিদ্ধান্তক্রমে যথারীতি ওই সারের ব্যবস্থা নেওয়া হবে।

এ বিষয়ে জানতে চাইলে সহকারী কমিশনার (ভূমি) ভ্রাম্যমাণ আদালতের নির্বাহী ম্যাজিস্ট্রেট ইন্দ্রজিৎ সাহা বলেন, নিয়ম বর্হিভূতভাবে সার মজুদ করা হয়েছে। সেগুলো বাজার সংকট দেখিয়ে গোপনে চড়া দামে বিক্রি করা হচ্ছে। জব্দকৃত সার ডিলারের স্বীকারোক্তিমূলে তাকে ৫০,০০০ (পঞ্চাশ হাজার) টাকা জরিমানা করা হয়েছে।

প্রসঙ্গত, রাণীশংকৈলে কৃত্রিম সার সংকট সৃষ্টি হওয়ায় কৃষকদের মাঝে ক্ষোভ দেখা দিয়েছে।