রক্ত ভেজা জমি না ছাড়ার প্রত্যয়ে সাঁওতাল-বাঙালি নারী সমাবেশ

94
রক্ত ভেজা জমি না ছাড়ার প্রত্যয়ে সাঁওতাল-বাঙালি নারী সমাবেশ
রক্ত ভেজা জমি না ছাড়ার প্রত্যয়ে সাঁওতাল-বাঙালি নারী সমাবেশ

গাইবান্ধা জেলা প্রতিনিধিঃ তিন ফসলি জমিতে রপ্তানি প্রক্রিয়াকরণ অঞ্চল (ইপিজেড) নির্মাণের সিদ্ধান্ত বাতিলের দাবিতে গতকাল শনিবার গাইবান্ধার গোবিন্দগঞ্জ উপজেলায় বিক্ষোভ মিছিল ও সমাবেশ করেছেন সাঁওতাল-বাঙালি নারীরা। এ সময় তাঁরা প্রত্যয় ব্যক্ত করেন যে, রক্ত ভেজা জমি আমরা ছাড়বো না।

সাঁওতাল-বাঙালি নারীরা সাঁওতাল পল্লী মাদারপুর ও জয়পুর গ্রাম থেকে মিছিল নিয়ে গোবিন্দগঞ্জ-দিনাজপুর সড়ক প্রদক্ষিণ করে কাটামোড় এলাকায় সমাবেশ করেন। সমাবেশ ও বিক্ষোভ মিছিলটি আয়োজন করে সাহেবগঞ্জ ও বাগদাফার্ম ভূমি উদ্ধার সংগ্রাম কমিটির সাঁওতাল-বাঙালি নারীরা।

বাঙালি নারী নেত্রী ওমেদা বেগম এর সভাপতিত্বে বক্তব্য রাখেন সাঁওতাল নেত্রী প্রিসিলা মুর্মু, নমিতা টুডু, অলিভিয়া হেমব্রম, শারমিন মার্ডি, মমতা হেমব্রম, রাজমনি হেমব্রম, সাঁওতাল নেতা সুফল হেমব্রম প্রমুখ।

বক্তারা বলেন, সাঁওতাল-বাঙালিদের বাপ-দাদার সম্পত্তি তিন ফসলি জমিতে প্রস্তাবিত ‘রংপুর ইপিজেড নির্মাণের সিদ্ধান্ত বাতিল করে অন্য এলাকায় ইপিজেড নির্মাণের দাবী জানান। জমির রক্ষার আন্দোলন করতে গিয়ে আমাদের তিন সাঁওতাল জীবন দিয়েছে, এই জমিতে আমরা ইপিজেড করতে দেব না। একই সাথে তাঁরা তিন সাঁওতাল হত্যা ও সাঁওতালদের বাড়ীতে অগ্নিসংযোগ ও লুটপাটের বিচারের দাবী জানান।

উল্লেখ্য যে, ২০১৬ সালের ৬ নভেম্বর চিনিকল কর্তৃপক্ষ ও পুলিশ এসব জমিতে উচ্ছেদের উদ্দেশ্যে গেলে সাঁওতালদের সাথে সংঘর্ষ হয়। এতে তিনজন নিহত ও ২০ জন সাঁওতাল আহত হন।