মেয়েকে উত্ত্যক্ত করায় বখাটেকে শায়েস্তা করলেন মা

164

মেহেরপুর প্রতিনিধি: মেহেরপুরে মেয়েকে উত্ত্যক্ত করায় বখাটে যুবককে লাঠি দিয়ে পিটিয়েছেন মা। বারবার নিষেধের পরও কথা শোনেনি ওই বখাটে। ফলে যুবককে পিটিয়ে প্রতিশোধ নিলেন মেয়ের মা। এদিকে পেটানোর ভিডিও সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমে ভাইরাল হয়ে পড়েছে।

গত শুক্রবার (২৭শে মে) মেহেরপুর শহরের শহীদ ড. সামসুজ্জোহা পার্কে ঘটনাটি ঘটেছে। তবে লাঠিপেটার ভিডিও সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমে ছড়িয়ে পড়ে শনিবার (২৮ মে) দুপুরে। ওই ভিডিওতে দেখা যায়, মেহেরপুর শহরের শহীদ ড. সামসুজ্জোহা পার্কে সোহেল খান নামের এক যুবককে পেটাচ্ছেন এক নারী।

জানা যায়, শহরের হোটেল বাজার এলাকার সোহেল খান নামের এক যুবক ওই নারীর মেয়েকে দীর্ঘদিন ধরে উত্ত্যক্ত করে আসছিলেন। সেই প্রতিবাদে তিনি পার্কে জনসম্মুখে ওই যুবককে লাঠি দিয়ে পেটাতে থাকেন। ওই যুবক স্থানীয় ডিস ক্যাবল অপারেটর টেলিভিশনের মডেলিং করেন।

মেহেরপুর শহরের খা পাড়ার বাসিন্দা ওই নারী জানান, তার মেয়েকে তিন থেকে চার মাস ধরে বখাটে সোহেল খান নামের ওই ছেলেটি উত্ত্যক্ত করছিল। রাস্তা-ঘাটে বিভিন্নভাবে তার মেয়েকে হয়রানি করে। বিষয়টি সমাজের চোখে খারাপ দেখাবে ভেবে তার মেয়ে গোপন করে রাখে।

কিন্তু বারবার মেয়েকে উত্ত্যক্ত করায় তার মেয়ে তাকে বিষয়টি জানায়। এরপর ওই বখাটেকে অনেক খোঁজাখুঁজি করে শহীদ ড. সামসুজ্জোহা পার্কে আছে এমন খবর জানতে পারেন তিনি। সেখানে তার মেয়েকে কেন উত্ত্যক্ত করা হয় জানতে গেলে ছেলেটি তার সঙ্গে খারাপ ব্যবহার করে।

মেয়েটি জানান, ওই ছেলেটি তাকে বিভিন্নভাবে গত ৪-৫ মাস ধরে উত্ত্যক্ত করছে। 

গত একমাস ধরে স্বাভাবিকভাবে চলাফেরা করতে পারছেন না তিনি। পরে বিষয়টি তার পরিবারকে জানান। কেন তাকে উত্ত্যক্ত করছে জানতে চাইলে ছেলেটি তাদের ওপরে চড়াও হয়। এমন প্রতিবাদের ঘটনায় সোশ্যাল মিডিয়াতে প্রশংসায় ভাসছেন ওই মা।

তবে সোহেল খানের দাবি, তার সঙ্গে বিভিন্ন সময়ে আর্থিক লেনদেন করা হয়েছে। টাকা চাইতে গেলে বিভিন্ন ভাবে হুমকি-ধামকি দেওয়া হয়। তার মেয়েকে উত্ত্যক্ত করার বিষয়টি মিথ্যা বলেও দাবি করেন তিনি।