বাংলাদেশ ইউনিভার্সিটিতে রবীন্দ্র, নজরুল ও শেক্সপিয়ার কার্নিভাল

117

বেসরকারি বিশ্বদ্যিালয় বাংলাদেশ ইউনিভার্সিটিতে দিনব্যাপী রবীন্দ্র, নজরুল এবং শেক্সপিয়ার কার্নিভাল অনুষ্ঠিত হয়েছে।

এ উপলক্ষে শনিবার (৩০ জুলাই ২০২২) সকালে মোহাম্মদপুরের আদাবরস্থ ইউনিভার্সিটির স্থায়ী ক্যাম্পাস অডিটোরিয়ামে এক আলোচনা অনুষ্ঠিত হয়। উক্ত আলোচনা সভায় প্রধান অতিথি হিসেবে উপস্থিত ছিলেন বাংলাদেশ ইউনিভার্সিটির ভারপ্রাপ্ত উপাচার্য অধ্যাপক ড. মেসবাহ কামাল।

অনুষ্ঠানে বিশেষ অতিথি হিসেবে উপস্থিত ছিলেন যথাক্রমে বিইউ’র ভারপ্রাপ্ত কোষাধ্যক্ষ কামরুল হাসান, রেজিস্ট্রার ব্রিগেডিয়ার জেনারেল মোঃ মাহবুবুল হক (অবঃ), পরীক্ষা নিয়ন্ত্রক অধ্যাপক মোঃ আমিরুল আলম খান প্রমুখ। অনুষ্ঠানে সভাপতিত্ব করেন ইংরেজী বিভাগের চেয়ারম্যান শেখ আলাউদ্দিন।

আলোচনা সভায় প্রধান অতিথির বক্তৃতায় অধ্যাপক ড. মেসবাহ কামাল রেনেসাঁ ও মানবাধিকার প্রতিষ্ঠার ক্ষেত্রে শেক্সপিয়ার, রবীন্দ্রনাথ এবং নজরুলের অবদানের কথা স্মরন করে অসাম্প্রদায়িক চেতনার বাঙ্গালি জাতিকে জাগিয়ে তোলার ক্ষেত্রে রবীন্দ্রনাথ এবং নজরুলের অবদান এবং সমকালীন প্রাসঙ্গিকতার কথা তুলে ধরেন।

অনুষ্ঠানে অন্যান্য অতিথিগণ নিজ নিজ বক্তব্যে সমাজ বিনির্মাণ ও মানুষের মনন গঠনে জগদ্বিখ্যাত সাহিত্যিক রবীন্দ্রনাথ ঠাকুর, কাজী নজরুল ইসলাম ও উইলিয়াম শেক্সপিয়ার এর অবদানের কথা উল্লেখ করেন। তারা বলেন, ”রবীন্দ্রনাথ ও নজরুল দুই অসাম্প্রদায়িক চেতনার কবি। তারা বাঙালি মননকে ধারণ করেছেন এবং তাদের সাহিত্যিকর্মে তার প্রতিফলন ঘটিয়েছেন। শেক্সপিয়ারকে বুঝতে গেলে কালান্তরের চিত্র বুঝতে হবে। তিনি কালের প্রতিবিম্ব হয়ে উঠেছেন তার লেখায় মানবিক মূল্যবোধের চিরন্তন প্রতিফলন ঘটিয়ে। রবীন্দ্র, নজরুল, শেক্সপিয়ার তিনজনই কালোর্ত্তীন সাহিত্যিক। আমরা তাদের অবদানের কথা কৃতজ্ঞতার সাথে স্মরণ করি। তাদের সাহিত্যকর্মের আদর্শ ও অনুশাসন আমাদের জীবনে প্রতিফলনের মাধ্যমে আমরা একটি আদর্শ জাতি গঠন করতে সক্ষম হব”। ভবিষ্যতেও সাহিত্য ও মুক্তচিন্তার চর্চার জন্য এরকম আরো অনুষ্ঠান আয়োজনের আশাবাদ ব্যক্ত করেন বক্তাগণ।

কার্নিভালের দ্বিতীয় পর্বে অনুষ্ঠিত হয় এক মনোজ্ঞ সাংস্কৃতিক অনুষ্ঠান। অনুষ্ঠানে ইউনিভার্সিটির বিভিন্ন বিভাগের বিভাগীয় প্রধানগন, শিক্ষক-কর্মকর্তা ছাড়াও ইংরেজী বিভাগের ছাত্র-ছাত্রীরা উপস্থিত ছিলেন। এর আগে আজ সকালে দিনব্যাপী কার্নিভালের আনুষ্ঠানিক উদ্বোধন ঘোষণা করেন বিইউ’র ভারপ্রাপ্ত উপাচার্য অধ্যাপক ড. মেসবাহ কামাল।