নড়াইলে শ্রাবনীর আত্মহত্যার ঘটনাকে কেন্দ্র করে স্কুল শিক্ষকসহ চার জনের বিরুদ্ধে আদালতে মামলা

88

উজ্জ্বল রায়, নড়াইল থেকে : নড়াইলের নড়াগাতিতে শ্রাবনী (১৪) নামের এক তরুণীর আত্মহত্যার ঘটনাকে কেন্দ্র করে এক স্কুল শিক্ষকসহ চার জনের বিরুদ্ধে আদালতে মামলা দায়ের হয়েছে। প্রেমের ঘটনা ও মানষিক নির্যাতনের অভিযোগে তরুণীর পিতা বাদী হয়ে মামলাটি দায়ের করেন। শ্রাবনী কলাবাড়িয়া গ্রামের এস এম মোস্তাইন হোসেনের মেয়ে।

মামলার বিবরণে জানা যায়, শ্রাবনী তার নিকট প্রতিবেশী মকিদ সরদারের ছেলে যুবা সরদারের সঙ্গে প্রেমের সম্পর্ক গড়ে ওঠে। পরবর্তীতে শ্রাবনীর শারীরিক সমস্যা দেখা দেয়। শ্রাবনী ও তার খালাতো বোন ঘটনাটি যুবা ও তার পরিবারকে জানাতে গেলে প্রেমিক যুবা ও তার পিতা মকিত সরদার-মাতা ছমিরণ বেগমসহ একই গ্রামের স্কুল শিক্ষক হেমায়েত সরদার তাকে ভৎসনা করে। এছাড়াও কুরুচিপূর্ণ কথা বলেন। লোক লজ্জার ভয়ে ও প্রেমিকের দ্বারা প্রতারিত হয়ে গত ২৬ এপ্রিল শ্রাবনী নিজ ঘরে গলায় ফাঁস দিয়ে আত্মহত্যা করে বলে অভিযোগ করা হয়েছে।

নড়াগাতি থানা পুলিশ যথারীতি শ্রবনীর লাশ ময়না তদন্ত সম্পন্ন করে। ময়না তদন্ত রিপোর্ট পাওয়ার পর শ্রাবনীর পিতা মোস্তাইন শেখ বাদী হয়ে বৃহস্পতিবার নড়াইলের নড়াগাতী বিজ্ঞ আমলী আদালতে যুবা,মকিত সরদার,ছমিরণ বেগম ও হেমায়েত সরদারকে আসামী করে মামলা দায়ের করেন। আদালত মামলাটি তদন্তের জন্য পিবিআই যশোরের ওপর ন্যাস্ত