দাগনভূঁঞায় ডাকাত দলের ২ সদস্য গ্রেপ্তার

265

শেখ আশিকুন্নবী সজীব, ফেনী প্রতিনিধি : ফেনীর দাগনভূঁঞায় ডাকাতির প্রস্তুতিকালে  দেশীয় অস্ত্রসহ আন্তঃজেলা ডাকাত দলের ২ সদস্যকে গ্রেপ্তার করেছে পুলিশ। সোমবার দিবাগত রাতে উপজেলার সিন্দুরপুর ইউনিয়নের রঘুনাথপুর গ্রাম থেকে তাঁদের গ্রেপ্তার করা হয়।

গ্রেপ্তারকৃতরা হচ্ছেন- রঘুনাথ পুর গ্রামের সাজু চেয়ারম্যানের বাড়ীর ওবায়দুল হকের ছেলে এহসানুল হক রবিন (১৮) ও জগৎপুর গ্রামের রহিম উল্যাহর ছেলে নুর ইসলাম (২১)। পুলিশ জানায়, সোমবার দিবাগত রাতে উপজেলার সিন্দুরপুর ইউনিয়নের রঘুনাথপুর গ্রামে ডাকাতির ঘটনা ঘটাবে সঙ্গবদ্ধ একটি ডাকাত দল। এ সময় তারা রঘুনাথপুর বাজারের পাশে একটি বাগানে অবস্থান নেয়। 

এমন গোপন  সংবাদের ভিত্তিতে দাগনভূঁঞা থানার এএসআই জামাল হোসেন ডাকাত দলের এক সদস্যের সাথে পূর্ব থেকে সম্পর্ক গড়ে তুলে। পরবর্তীতে তিনি ওই দিন ডাকাত দলের সদস্যদের সাথে মিশে যায়।এসময়  ডাকাত দলের সদস্যরা রঘুনাথপুর বাজারের পূর্ব পাশে জয়নাল মিয়ার বাগানে অবস্থান নেন এবং  রাত ২ টার দিকে তারা ডাকাতি সংঘটিত করবে এমন পরিকল্পনা করেন। ডাকাত দলের সদস্যদের এসকল কথোপকথন এবং তাদের পরিকল্পনা গোপনে ওসিকে অবহিত করেন ডাকাত দলের সদস্যদের সাথে থাকা এএসআই জামাল।

পরিকল্পনার বিষয়টি জেনে থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) মো: হাসান ইমাম অন্যান্য পুলিশ সদস্যদের নিয়ে রাত ১ টার দিকে রঘুনাথপুরের ওই বাগানের চারপাশ ঘিরে ফেলে। পুলিশের উপস্থিতি টের পেয়ে ডাকাতদলের সদস্যরা পুলিশকে লক্ষ্য করে গুলি ছুঁড়তে থাকে। এসময় ধাওয়া করে ডাকাত দলের ২ সদস্যকে গ্রেপ্তার করে পুলিশ। বাকিরা অস্ত্রশস্ত্র নিয়ে পালিয়ে যায়।

পরে মঙ্গলবার সকালে ওই দুই ডাকাত সদস্যকে নিয়ে রঘুনাথপুরের মিয়ার বাগানসংলগ্ন এলাকায় পুলিশ অভিযান চালায়। এসময় একটি ধানক্ষেত থেকে বস্তাবন্দি অবস্থায় বেশকিছু দেশীয় অস্ত্র উদ্ধার করে। এর মধ্যে একটি দেশীয় আগ্নেয়াস্ত্র, ২ পিস কার্তুজ, বেশকিছু ছুরি, চাইনিজ কুড়ালসহ বিপুল পরিমাণ দেশীয় অস্ত্র উদ্ধার করে। 

দাগনভূঁঞা থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) মো. হাসান ইমাম জানান, ডাকাতের এ চক্রটি দীর্ঘদিন ধরে ওই এলাকায় এবং পার্শ্ববর্তী সেনবাগ এবং নাঙ্গলকোর্ট এলাকায় ডাকাতি করে আসছে। তাদের প্রত্যেকের নামে সাত থেকে আটটি করে ডাকাতি, চুরি ও ছিনতাইয়ের মামলা রয়েছে। গ্রেপ্তারকৃত দুই ডাকাতের বিরুদ্ধে অস্ত্র ও ডাকাতির প্রস্তুতির মামলা হবে।বুধবার তাদের আদালতে প্রেরণ করা হবে।