কাজ কম করলে কর্মক্ষমতা বাড়ে!

223
গবেষণায় দেখা গে‌ছে, কম কাজ করলে একজন কর্মীর কর্মক্ষমতা বৃ‌দ্ধি পায়।গবেষকরা বল‌ছেন, কম কাজ শুধু কর্মক্ষমতাই বাড়ায় না, ব‌্যক্তিগত জীব‌নে সুখ বৃ‌দ্ধির পেছনেও ভূ‌মিকা রাখে।
গবেষণায় দেখা গে‌ছে, কম কাজ করলে একজন কর্মীর কর্মক্ষমতা বৃ‌দ্ধি পায়।গবেষকরা বল‌ছেন, কম কাজ শুধু কর্মক্ষমতাই বাড়ায় না, ব‌্যক্তিগত জীব‌নে সুখ বৃ‌দ্ধির পেছনেও ভূ‌মিকা রাখে।

সফলতার অন‌্যতম চা‌বিকা‌ঠি হি‌সে‌বে ধরা হয় একজন কর্মীর কর্মক্ষমতা। সবাই চায় কর্মক্ষমতা বাড়া‌তে। ধ‌রেই নেওয়া হয়, বেশি বেশি কাজ করলেই কর্মক্ষমতা বৃ‌দ্ধি পায়। কিন্তু সাম্প্রতিক এক গ‌বেষণায় চমকপ্রদ এক তথ‌্য আ‌বিষ্কৃত হ‌য়ে‌ছে। গ‌বেষণায় দেখা গে‌ছে, কম কাজ কর‌লে একজন কর্মীর কর্মক্ষমতা বৃ‌দ্ধি পায়।

গবেষকরা বল‌ছেন, কম কাজ শুধু কর্মক্ষমতাই বাড়ায় না, ব‌্যক্তিগত জীব‌নে সুখ বৃ‌দ্ধির পেছ‌নেও ভূ‌মিকা রা‌খে।

‘ইয়োর ব্রেন অ্যাট ওয়ার্ক’ বইয়ে লেখক ডেভিড রক ব‌লে‌ছেন, সপ্তাহে মাত্র ৬ ঘণ্টা নিজের পেছ‌নে সময় দেয় একজন মানুষ। অথচ সপ্তাহে গড়ে অন্তত ৪০ ঘণ্টা কাজ কর‌তে হয়।

এমন অনেক কাজই আপ‌নি ক‌রেন যার জন‌্য সদা ব‌্যস্ততা অনুভব করেন। কিন্তু স‌ত্যিকার অ‌র্থে এই কাজগু‌লোর তেমন কো‌নো ফলপ্রসু প্রভাব ফে‌লে না আপনার জীব‌নে। আর এসব কাজই হরণ ক‌রে নেয় আপনার প্রাণশক্তি। এই কাজগুলো থেকে নিজেকে দূ‌রে স‌রি‌য়ে রাখ‌তে পারলে আপনি স‌ত্যিকা‌রের গুরুত্বপূর্ণ কাজে ম‌নো‌যোগী হ‌তে পার‌বেন। পাশাপা‌শি মনের প্রশান্তির জন্য য‌থেষ্ট সময় বের করতে পারবেন।

এজন‌্য শুরু‌তেই আপনাকে কা‌জের তা‌লিকা প্রস্তুত কর‌তে হবে। সেই তা‌লিকায় থাক‌বে কোন কাজগু‌লো আপনার জন‌্য আস‌লেই গুরুত্বপূর্ণ।

কাজের তালিকা তৈ‌রির পর আপনা‌কে সিদ্ধান্ত নি‌তে হ‌বে কোন কাজকে বেশি গুরুত্ব দেবেন এবং কোন কাজ বন্ধ করে দেবেন। অপ্রয়োজনীয় কাজ তা‌লিকা থে‌কে স‌রি‌য়ে দেওয়ার ক্ষে‌ত্রে প্রয়োজ‌নে আপনা‌কে ক‌ঠোর হতে হবে। যেসব কাজ থে‌কে আপনার আনন্দ প্রা‌প্তি ঘ‌টে সেই কাজগুলোকে অবশ্যই তালিকায় রাখ‌তে হ‌বে। গ‌বেষণায় দেখা গে‌ছে, আনন্দ আপনার কর্মক্ষমতা‌কে ১২ শতাংশ পর্যন্ত বা‌ড়ি‌য়ে দি‌তে পা‌রে।