অগ্নিনির্বাপণের আধুনিক ব্যবস্থা নিশ্চিত করার নির্দেশ প্রধানমন্ত্রীর

139
অগ্নিনির্বাপণের আধুনিক ব্যবস্থা নিশ্চিত করার নির্দেশ প্রধানমন্ত্রীর
অগ্নিনির্বাপণের আধুনিক ব্যবস্থা নিশ্চিত করার নির্দেশ প্রধানমন্ত্রীর

প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা বলেছেন, কল-কারখানা ছাড়াও দেশের প্রতিটি ভবন যেখানে অফিস, আদালত, স্কুল, কলেজ, ইউনিভার্সিটি, শপিংমল, বিনোদন কেন্দ্র ও সিনেমা হল রয়েছে সেগুলোতে অগ্নিনির্বাপণ ব্যবস্থা নিশ্চিত করতে হবে।

রোববার, ২৪ এপ্রিল সারাদেশে ৪০টি নতুন ফায়ার সার্ভিস স্টেশন উদ্বোধন করেন প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা। এসময় এক ভাষণে এ কথা বলেন প্রধানমন্ত্রী। এদিন তিনি গণভবন থেকে ভিডিও কনফারেন্সের মাধ্যমে রাজধানীর ফায়ার সার্ভিস ও সিভিল ডিফেন্স অধিদপ্তর ভবনে আয়োজিত অনুষ্ঠানে যোগ দেন। অনুষ্ঠানে দমকল বাহিনীর আধুনিকায়ন এবং নবনির্মিত ৪০টি ফায়ার সার্ভিস স্টেশনের ওপর একটি ভিডিও চিত্রও প্রদর্শিত হয়।

প্রধানমন্ত্রী তার ভাষণে ফায়ার সার্ভিস স্টেশন নির্মাণের পাশাপাশি অত্যাধুনিক অগ্নিনির্বাপণ যন্ত্রপাতি সংযুক্ত করা, দেশ-বিদেশে ফায়ার ফাইটারদের উন্নত প্রশিক্ষণসহ ফায়ার সার্ভিস ও সিভিল ডিফেন্সের সক্ষমতা বাড়াতে সরকারের বিভিন্ন কার্যক্রমের কথা তুলে ধরেন।

প্রধানমন্ত্রী বলেন, সরকার জনগণের ভাগ্য উন্নয়নে কাজ করে যাচ্ছে। দেশ এগিয়ে যাচ্ছে। এজন্য প্রতিটি ক্ষেত্রে অগ্নিনির্বাপণ ব্যবস্থা থাকা অত্যন্ত জরুরি। আমাদের জলাধারগুলো সংরক্ষণ করতে হবে। পাশাপাশি বৃষ্টির পানি সংরক্ষণেরও ব্যবস্থা নিতে হবে।

নতুন ভবন নির্মাণের সময় অগ্নিনির্বাপণের ব্যবস্থা রাখার আহ্বান জানান প্রধানমন্ত্রী। তিনি উন্নয়ন কর্তৃপক্ষ, আর্কিটেক্ট, ইঞ্জিনিয়ারসহ ভবনের নকশা প্রণয়নের সঙ্গে জড়িত সবাইকে উদ্দেশ্য করে বলেন, নতুন কোনো প্রকল্প গ্রহণ করলে সেখানে অগ্নিনির্বাপণের আধুনিক ব্যবস্থা নিশ্চিত করতে হবে। কখনো আগুন লেগে গেলে তা নির্বাপণে পর্যাপ্ত পানির ব্যবস্থা নিশ্চিত করতে হবে।

এসময় ২০০৯ সালে রাজধানীর পান্থপথে বসুন্ধরা শপিং মলে অগ্নিকাণ্ডের কথা উল্লেখ করে শেখ হাসিনা বলেন, যেখানে বসুন্ধরা শপিং মল তৈরি হয়েছে একসময় এই পান্থপথের পুরো এলাকা বিল ছিল। আজ সেই জলাধার ভরাট করে পুরো এলাকার জলাধার বিলীন করে ফেলায় সেদিন আগুন নেভানোর জন্য হোটেল সোনারগাঁওয়ের সুইমিংপুল থেকে দমকল কর্মীদের পানি সরবরাহ নিশ্চিত করতে হয়েছে।

দমকল বাহিনীর গাড়ি দুর্গত এলাকায় যাতে নির্বিঘ্নে ও দ্রুততম সময়ের মধ্যে পৌঁছাতে পারে সেজন্য প্রশস্ত রাস্তার পাশাপাশি পানির সহজলভ্যতা নিশ্চিত করতে বলেন প্রধানমন্ত্রী। তিনি জানান, বর্তমানে দেশের দমকল বাহিনীর ২০ তলা পর্যন্ত অগ্নিনির্বাপণ সক্ষমতা রয়েছে। ক্রমশ এই সক্ষমতা বৃদ্ধি পাচ্ছে বলেও জানান সরকারপ্রধান। নিয়মিত অগ্নি নির্বাপণ মহড়ার আয়োজন এবং বহুতল ভবনে খোলা বারান্দা রাখার ওপর গুরুত্বারোপ করেন তিনি।